এবার অক্সিজেন কনসেনট্রেটর দিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মহামারি করোনা ভাইরাস থেকে রক্ষা পেতে পালস অক্সিমিটার ও অক্সিজেন সিলিন্ডার সরবরাহের পর এবার অক্সিজেন কনসেনট্রেটর মেশিন প্রদান করলেন রাজশাহী-৬ (চারঘাট-বাঘার) সাংসদ ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। 

মঙ্গলবার (৬ জুলাই) সকালে রাজশাহী, নাটোর এবং পাবনার বিভিন্ন উপজেলায় দলীয় নেতা এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের মাধ্যমে চিকিৎসকদের হাতে তিনি এ মেশিন প্রদান করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, মহামারি করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ধাক্কায় হাজার-হাজার মানুষের প্রাণ চলে যাচ্ছে। এটি প্রতিরোধের জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন বর্তমান সরকার ও চিকিৎসকরা। পাশাপাশি রোগীদের প্রাণ রক্ষার জন্য প্রয়োজন হচ্ছে পালস অক্সিমিটার ও অক্সিজেন সিলিন্ডার- সহ নানা সামগ্রী। এ জন্য বর্তমান সরকারের মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব শাহরিয়ার আলম তার নির্বাচনী দুটি উপজেলা (চারঘাট-বাঘা)সহ রামেক হাসপাতালে নিজস্ব অর্থায়নে ইতোমধ্যে প্রদান করেছেন একশটি অক্সিজেন সিলিন্ডার।

এর আগে তিনি চারঘাট-বাঘা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ দুই উপজেলার কমিউনিটি ক্লিনিক জন্য প্রদান করেন ৬০ টি পালস অক্সিমিটার। এই যন্ত্রটির কাজ হলো-রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা ও হৃদস্পন্দনের গতি নির্ণয় করা।

সর্বশেষ মঙ্গলবার দুপুরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দশটি, চারঘাট উপজেলায় চারটি, বাঘায় চারটি, পুঠিয়ায় চারটি, দুর্গাপুরে চারটি, নাটোরের লালপুরে চারটি, বাগাতি পাড়ায় পাঁচটি এবং পাবনার ঈশ্বরদীতে পাঁচটি। সর্বমোট ৪০(চল্লিশ) টি অক্সিজেন কনসেনট্রেটর মেশিন প্রদান করেন। এটার কাজ হচ্ছে বাতাস থেকে অক্সিজেন তৈরি করা।

এদিকে এসব উপকরণ পেয়ে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর প্রতি কৃতঙ্গতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান ফকরুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দা সামিরা, পৌর মেয়র একরামুল হক এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আশিকুর রহমানসহ দলীয় নেতাকর্মী ও স্থানীয় লোকজন।

চারঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দা সামিরা বলেন, বৈশ্বিক করোনা মহামারিতে সরকারি অনুদানের পাশাপাশি মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম মহোদয় উপজেলাবাসীর জন্য যা করছেন তা মনে রাখার মতো। অনেকেই প্রতিমন্ত্রী মহোদয়ের এসব মানবিক কর্মকাণ্ডের জন্য দোয়া কামনা করছেন।

সনি/চারঘাট

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button